ঘুমে ব্যাঘাত হচ্ছে? খান ৭ খাবার

সারাদিনের ধকল শেষে রাতে নির্বিঘ্ন ঘু’ম শরীরের জন্য খুবই জরুরি। ঠিকমতো ঘু’ম না হলে শরীর ও মন— দুই ভালো থাকে না; ক্লান্তি ও অবসান ঘিরে ফেলে।

নিয়মিত পর্যা’প্ত ঘু’ম না হলে সেটি আমা’দের শরীরের শক্তি কমিয়ে দিতে এবং চাপ বাড়িয়ে দিতে পারে।

সুস্থ জীবনযাপনের জন্য খাবার, ব্যায়াম ও পর্যা’প্ত ঘু’ম অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। আর ঘু’মের ওপরে প্রভাব ফেলে আমা’দের নিয়মিত খাদ্যাভ্যাস। গবেষণা বলছে— সঠিক ঘু’মের জন্য সেরা উপায় হচ্ছে স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়া।

যদি ঘু’মের সমস্যায় ভুগে থাকেন, তবে আপনার জন্যই আজকের টিপস।

১. দুধ
দুধ ঘু’ম ভালো ’হতে সহায়তা করে। দুধ ট্রিপটোফান ও ক্যালসিয়াম সমৃ’’দ্ধ। আর ট্রিপটোফান হচ্ছে একটি অ্যামিনো অ্যাসিড, যা শরীরের সেরোটোনিন উৎপাদনে সাহায্য করে। ঘু’মের অবস্থার বিশেষজ্ঞ এবং চিকিৎসক গ্যান ইঞ্জ সার্ন জানান, সেরোটোনিন ঘু’মের চক্রের জন্য দায়ী মেলাটোনিন নামের হরমোন তৈরি করে, যা আরও ভালো ঘু’ম ’হতে সহায়তা করে।

২. বাদাম
বাদাম ও আখরোট আমা’দের ঘু’ম আরও গভীর করতে সাহায্য করে। পুষ্টিবিদ ক্রিস্টিন গিলেস্পি বলেন, বাদাম মেলাটোনিন হরমোন সমৃ’’দ্ধ আর এটি আমা’দের ভালো ঘু’ম ’হতে সহায়তা করে।

৩. কলা
কলা আমা’দের ভালো ঘু’ম ’হতে সহায়তা করতে পারে। কলাতে পটাশিয়াম, ট্রিপটোফান ও ম্যাগনেসিয়াম থাকে। এমডি এবং ফর্ম ইন ইনডিন মেডিকেলের প্রতিষ্ঠাতা ড. ক্রিস্টিন বিশারা বলেন, ম্যাগনেসিয়াম আমা’দের পেসিগু’লোকে সিথিল করতে সহায়তা করে, যা ভালো ঘু’ম ’হতে সাহায্য করে।

৪. পালং শাক
পালং শাকে ট্রিপটোফান উপাদানটি অনেক পরিমাণে থাকায় এটি আমা’দের ভালো ঘু’ম ’হতে সাহায্য করে। তাই রাতে ঘু’মাতে যাওয়ার আগে বা রাতের খাবারে পালং শাক রাখলে তা আপনার পরিপূর্ণ ঘু’ম বয়ে আনতে পারে।

৫. ডিম
আমা’রা সবাই জানি যে ডিমে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন থাকে। কিন্তু অনেকেই হয়তো জানেন না যে, ডিমে প্রোটিনের পাশাপাশি মেলাটোনিন ও ট্রিপটোফানও থাকে প্রচুর পরিমাণে। আর এ দুটি উপাদান ঘু’ম ভালো ’হতে সহায়তা করে।

৬. কুমড়োর বীজ
অন্যতম একটি ম্যাগনেসিয়াম পরিপূর্ণ খাবার হচ্ছে কুমড়োর বীজ। এর প্রতি ২৮ গ্রামে প্রায় ১৫০ মিলিগ্রাম পর্যন্ত ম্যাগনেসিয়াম থাকতে পারে। আর এ কারণে এটি ভালো ঘু’ম ’হতে অনেক উপকারী।

৭. তুলসী চা
চা মানেই অনেকে ভাবেন যে, এটি ঘু’মবিরোধী একটি পানীয়। কিন্তু জেনে অবাক হবেন যে, তুলসী চা আপনার ভালো ঘু’ম ’হতে সহায়তা করতে পারে। তুলসী মানসিক চাপ কমাতে এবং স্বাস্থ্যের উন্নয়নে সাহায্য করার পাশাপাশি এটি অনিদ্রার জন্য দায়ী হরমোনকে দূর করতে পারে।

তথ্যসূত্র: স্টাইলক্রেজ ডটকম

error: চুরি করা নিষেধ । 😏